সার্ভার কি? কত প্রকার ও কি কি – What is server

0
350
সার্ভার কি? কত প্রকার ও কি কি - What is server
সার্ভার কি? কত প্রকার ও কি কি - What is server

বন্ধুরা প্রযুক্তি সম্পর্কে বিভিন্ন ধরনের কন্টেন্ট পড়তে গিয়ে নিশ্চিত ভাবে অনেক বার আপনি সার্ভার শব্দটি শুনেছেন। তাই আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে আমি আপনাদের বলবো সার্ভার কি (What is server) এবং সার্ভার কত প্রকার ও কি কি সেই ব্যাপারে।

বর্তমানে ইন্টারনেট জগৎতে সার্ভার খুব একটি পরিচিত শব্দ। আমরা যদি ইন্টারনেট নিয়ে একটু কথা বলি, তাহালে কোন না কোনো ভাবে এই server এর মধ্যে ঢুকে যায়।

যদিও আমরা এর মধ্যে ঢুকে যায়, কিন্ত আসলে আমরা অনেকে জানি না সার্ভার কি সেই সম্পর্কে। যার ফলে প্রযুক্তিগত বিষয়ে আলোচনার সময় আমরা অনেক সময় অনেক কথাই দুর্বোধ্য থেকে যায়।

আসলে সার্ভার হলো এমন একটি কম্পিউটার বা সফটওয়্যার যার মাধ্যমে অন্যান্য কম্পিউটার, প্রোগ্রাম বা ডিভাইস গুলোকে তথ্য প্রদার করে। আপনি যখন ইন্টারনেটে কোনো ওয়েবসাইট সার্চ করে সেই ওয়েবাইটে ডুকতে পারবেন না, তখন বুঝে নিবেন সার্ভার ডাউন হয়ে আছে ঔ সাইটের।

যার জন্য আপনি ঔ ওয়রবসাইটে ডুকতে পারছেন না। তাহালে, চলুন নিচে থেকে আমরা জেনে আসি সার্ভার অর্থ কি সেই সম্পর্কে বিস্তরিত।

সার্ভার কি? (What is server)

সার্ভর মানে হলো এমন একটি কম্পিউটার সেখান থেকে অন্যান্য কম্পিউটার গুলোতে ডাটা, তথ্য গুলো সরবরাহ করে থাকে।

আবার সার্ভার মানে এমনও বলা যায়, Server হলো এমন একটি সফটওয়্যার যেখান থেকে নেটওয়ার্ক এর মাধ্যমে অন্যান্য কম্পিউটার বা প্রোগ্রাম গুলোর বিভিন্ন অনুরোধ পাঠানো হয় এবং  সার্ভার প্রতিটি জরুরি অনুরোধ গুলো গ্রহন করে প্রতিক্রিয়া করে।

যে সকল কম্পিউটার গুলো সার্ভারকে অনুরোধ করে এবং পরে সার্ভার থেকে প্রতিক্রিয়া গ্রহণ করে তাদেরকে বলা ক্লায়েন্ট। মূলত server গুলোর কাজ হলো ক্লায়েন্ট ডিভাইস বা কম্পিউটার গুলোকে সেবা প্রদান করা।

একটি সার্ভারে প্রচুর পরিমানে তথ্য জমা থাকে। লোকাল এরিয়া নেটওয়ার্ক (LAN) বা ইন্টারনেটের  দুইটি মাধ্যম যে কোনো একটি ব্যবহার করে সার্ভার কাজ করতে পারে।

উদাহরণঃ আপনি এখন আমার লেখা সার্ভার কি  এই আর্টিকেলটি পড়ছেন। এর জন্য আপনাকে কিছু কাজ করতে হয়েছে, যেমন- মোবাইল বা কম্পিউটারে ইন্টারনেট কানেকশন দিয়ে যেকোনো একটি ব্রাউজার ওপেন করে সরাসরি সফল ফ্রিল্যান্সার এই ওয়েবসাইটের অ্যাড্রেস লিখতে হয়েছে।

এর পরে কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে লেখাটি আপনি ওয়েব ব্রাউজারে দেখতে পেয়েছেন। এবার আপনার মাথায় প্রশ্ন আসতে পারে লেখাটি কোথায় থেকে ব্রাউজারে চলে আসলো?

নিশ্চয় লেখাটি কোথায় না কোথায় স্টোর বা জমা করে রাখা হয়েছিলো। সহজে বললে, কোনো কম্পিউটারের মেমোরিতে জমা রাখা হয়েছিলো। যেন আপনি বললে বা রিকোয়েস্ট করলে কম্পিউটার থেকে লেখাটি আপনাকে দেখিয়ে দিবে।

আপনি যখন নিদিষ্ট লিংকে ক্লিক করে ওয়েব অ্যাড্রেসটি লিখলেন তখন ব্রাউজার থেকে নিদিষ্ট পেজটা দেখানোর জন্য একটি কম্পিউটারকে রিকোয়েস্ট পাঠানো হলো। এবং সাথে সাথে আপনার পাঠানো রিকোয়েস্ট এক্সেপ্ট করে আপনার ব্রাউজারে লেখাটি দেখিয়ে দিলো।

এটা আগে থেকে হার্ড ড্রাইভে সংরক্ষণ করা ছিলো। এই কম্পিউটারটিকে বলা হয় সার্ভার বা ওয়েব সার্ভার। আশাকরি সহজে বুঝতে পারছেন server কি বা সার্ভার কাকে বলে

সার্ভার কত প্রকার?

“সার্ভার কত প্রকার” সেটা বলতে গেলে বলতে হয় অনেক ধরনের server রয়েছে। এর মধ্যে কোনটি ডেডিকেটেড মানে শুধু এক ধরনের কাজের জন্য ব্যবহার করা হয়। এই সার্ভারের কার্যক্রম গুলো বিশাল এবং এর ব্যবহার বর্তমানে প্রায় নেই বললে  চলে।

তবে, ব্যাক্তিগত পর্যায়ে এসব সার্ভার গুলো ব্যবহার করার সুযোগ রয়েছে। আর বাকি গুলো কম্বাইড বা হাইব্রিড হিসাবে বলা যায়। এগুলো আসলে অনেক গুলো ডেডিকেটেড সার্ভারের সমষ্টি। তবে, কম্পিউটার নেটওয়ার্ক এর ক্ষেত্রে বিভিন্ন ধরনের আলদা আলদা সার্ভার থাকতে পারে।

১. ওয়েব সার্ভার

Web server এ মূলত ওয়েব পেজ বা ওয়েব কনটেন্ট গুলো সংরক্ষণ করে রাখা হয়। এবং এগুলোকে ইউজারের রিকোয়েস্ট অনুসারে দেখানো হয়।

আবার বিশেষ ক্ষেত্রে ইউজারও কনটেন্ট গুলো আপলোড করার সুযোগ পায়। আমরা ইন্টারনেটে যত গুলো সার্ভার দেখি সব গুলো কোনো না কোনো ওয়েব সার্ভার।

২. এফটিপি (FTP) সার্ভার

অনেক দ্রুত গতিতে ফাইল ট্রান্সফার করার জন্য এফটিপি সার্ভার (FTP Server) ব্যবহার করা হয়। যে সব ইউজাররা ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট ব্যবহার করেন তারা এই বিষয়ে ভালো জ্ঞান বা জানেন। 

বিভিন্ন বড় বড় কোম্পানি গুলো তাদের ইউজারদের অনেক দ্রুত গতিতে গেম বা মুভি ডাউনলোড করার সুবিধার জন্য এই এফটিপি সার্ভার ব্যবহার করে।

বিশেষ এই সার্ভার ইউজারদের অপেক্ষাকৃত কাছাকাছি এরিয়াতে থাকায় এবং কম পরিমানে ইউজার অনেক দ্রুত সার্ভার থেকে ফাইল ট্রান্সফার করতে পারে। এই server এর ব্যবহার কম বলে বেশি ব্যবহার করা হয় ওয়েব সার্ভার, আইডেন্টি সার্ভার, ইমেইল সার্ভারে ব্যবহার করতে।

৩. ইমেইল সার্ভার

আপনারা হয়তো নাম শুনে বুঝতে পারছেন, এটা ইমেইল সংক্রান্ত একটি সার্ভার। এটি সাধারণত ব্যবহার করা হয় ইমেইলের তথ্য আদান প্রদান করার জন্য এবং তথ্য বা ডাটা গুলো সংরক্ষণ করে রাখার জন্য।

আপনারা হয়তো জানেন প্রতিটি ইমেইল কোনো না কোনো ইউজার তৈরি করে থাকে, সে জন্য যারা এই সার্ভারের দায়িত্ব থাকে তাদের নতুন করে কোনো কনটেন্ট সার্ভারে যুক্ত করতে হয় না। তাদের শুধু এই সার্ভার মেইনটেন্সের করতে হয়।

৪. আইডেন্টি সার্ভার

এই সার্ভারটি অনেকটা ডাটাবেস ধরনের। এই ধরনের সার্ভার গুলো ইউজারের লগ-ইন এবং সিকিউরিটি এর ধরনের বিষয় গুলো নিয়ন্ত্রণ করে থাকে।

৫. ডাটাবেস সার্ভার

এটা এমন একটি কম্পিউটার সিস্টেম যার কাজ ডাটাবেস থেকে ডাটা গুলো এক্সেস করা এবং সেগুলো আবার গ্রহন করে সেবা প্রদান করা। এখানে ওয়েবসাইটের সকল ডাটা বা তথ্য গুলো স্টোরে জমা রাখা হয়।

৬. অ্যাপ্লিকেশন সর্ভার

এই server গুলোকে মূলত ব্যবহার করা হয় বিভিন্ন ধরনের অ্যাপ্লিকেশন (application) গুলোকে রান (run) করার জন্য ব্যবহার করা হয়। এখানে বিভিন্ন ধরনের সফটওয়্যার ও হার্ডওয়্যার গুলো অন্তভুক্ত করা হয়। যার ফলে নানা ধরনের প্রোগ্রাম গুলো চলাচল করতে পারে।

৭. ফাইল সার্ভার

ফাইল সার্ভার কি এর মানে হলো এটা এমন একটি সার্ভার যেখানে বিভিন্ন ধরনের ডাটা, ফাইল গুলো জমা থাকে। ইউজার এটাকে সাধারণ একটি নেটওয়ার্ক এর মাধ্যমে ফাইল, ডাটা, তথ্য গুলোতে সহজে শেয়ার করতে পারে। এর জন্য আলদা কোনো external storage device ব্যবহার করতে হয় না।

আজকে আমরা কি জানলাম

তাহালে, বন্ধুরা আজকে আমরা জানলাম সার্ভার কি? এবং এর প্রকারভেদ সম্পর্কে। আমার লেখা What is server আর্টিকেলটি কেমন লাগলো অবশ্যই কমেন্টে জানাবেন। এবং ভালো লাগলে শেয়ার করবেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে